রেডি ওয়েবসাইট কেনার সুবিধা গুলো কি?

রেডি ওয়েবসাইট কেনার সুবিধা গুলো কি?

উইকিপিডিয়া এর তথ্যমতে, “ওয়েবসাইট বা ওয়েব সাইট অথবা শুধু সাইট হল কোন ওয়েব সার্ভারে রাখা ওয়েব পৃষ্ঠা, ছবি, অডিও, ভিডিও ও অন্যান্য ডিজিটাল তথ্যের সমষ্টি”। ওয়েব সাইট আপনার প্রতিষ্ঠানের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ একটি যোগাযোগ মাধ্যম হতে পারে। ওয়েবসাইট প্রতিষ্ঠান ভেদে বিভিন্ন ভূমিকা পালন করে। একেকজন একেক উদ্দেশ্য নিয়ে ওয়েবসাইট তৈরি করে থাকেন। একটা প্রতিষ্ঠান এর মালিক বা ছোট উদ্যোক্তা হিসেবে আপনি কোন ওয়েব ডেভেলপারকে দিয়ে একেবারে শুরু থেকেইে একটি ওয়েবসাইট ডেভেলপ করিয়ে নিতে পারেন যেটাকে কাস্টম ডেভেলপমেন্ট বলা হয়। আবার আপনার প্রতিষ্ঠান এর চাহিদা অনুযায়ী কারো কাছ থেকে একটা রেডি ওয়েবসাইট কিনে নিতে পারেন।

অনেক ব্লগ এবং নিউজ পোর্টাল ওয়েবসাইটে আমরা বিভিন্ন তথ্য সমৃদ্ধ লেখা পড়তে পারি। আবার কেউ কেউ নিজের প্রতিভাগুলো অনলাইনে পৃথিবীর কাছে তুলে ধরতে পোর্টফোলিও ওয়েবসাইট তৈরি করেন।সরকারি বেসরকারি অনেক প্রতিষ্ঠান তাদের সেবা গ্রহিতাদের সাথে সহজে যোগাযোগ এর জন্য নিজেদের একটা সুন্দর ওয়েবসাইট তৈরি করে থাকেন। এখন যদি আপনি আপনার বিজনেস এর জন্য একটা ওয়েবসাইট বানানোর কথা ভাবেন তাহলে আমি বলবো, আপনার ওয়েব সাইট হবে একটি শক্তিশালী মার্কেটিং মাধ্যম। ক্রেতাকে প্রভাবিত করার অন্যতম উপায়। তাছাড়া আন্তর্জাতিক ভাবে লেনদেন এবং পরিচিতির অন্যতম মাধ্যম হবে আপনার ওয়েবসাইট। সবাই দেখতেই পাচ্ছি যে ইকমার্স কত দ্রুত জনপ্রিয় হচ্ছে এদেশে।

আপনারা জানেন সম্প্রতি COVID-19 পরিস্থিতির কারণে এবং সবার হাতে হাতে মোবাইল এবং ইন্টারনেট সহজলভ্য হওয়ার কারণে মানুষ এখন ডিজিটাল সেবা গ্রহণে অনেক আগ্রহী। প্রতিদিন ছোট বড় প্রতিষ্ঠান এর জন্য নতুন নতুন ওয়েবসাইট তৈরি হচ্ছে। দিন যত যাচ্ছে মানুষ ততো ব্যস্ত হয়ে পড়ছে। আর এই ব্যস্ততার ভিতরে একটা কাস্টম ওয়েব সাইট বানিয়ে নেওয়া অনেকের কাছেই ঝামেলাপূর্ন মনে হয়। তাই রেডি ওয়েবসাইট কেনাবেচার বিষয়টি বর্তমানে খুব জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।

চলুন আজকে জেনে নিই রেডি ওয়েব সাইট কেনার সুবিধা গুলো কি?

রেডি ওয়েবসাইট আসলে কি?

রেডি ওয়েবসাইট নিয়ে আমাদের পুর্বের ব্লগ গুলোতে আলোচনা করা হয়েছে। আপনি চাইলে Yappobd এর ব্লগ সেকশন থেকে সেগুলো পড়ে নিতে পারবেন। তবুও সংক্ষেপে এখানে কিছু কথা বলছি। ধরুন আপনি একটি বড় কাঠামো বা বাড়ি বানাবেন। তার জন্য একটি ডিজাইন প্রস্তুত করলেন। তারপর আপনি ইট,বালি, সিমেন্ট ইত্যাদি দিয়ে আপনার কাঠামো তৈরি করলেন। ঠিক একইভাবে আপনার ওয়েবসাইটের ডেভেলপমেন্ট টি শুরু থেকেই অভিজ্ঞ একটি টিম এর কাছ থেকে পছন্দ অনুযায়ী করিয়ে নিতে পারেন।

আবার আপনি চাইলে রেডি ফ্লাট বা কাঠামো কিনে নিতে পারেন তাহলে কিন্তু আর এত কিছুর ঝামেলা থাকছেনা। সময়ও বেশি লাগেনা। একইভাবে আপনি চাইলে যাচাই বাছাই করে আপনার পছন্দ মত একটা রেডি ওয়েবসাইট কিনে নিতে পারেন।

রেডিওয়েবসাইট কেনার প্রধান সুবিধা গুলো হচ্ছে…

কম সময়ে লাইভ ওয়েবসাইট পাওয়া যায়ঃ

সাধারনত যদি আপনার হাতে সময় কম থাকে অবশ্যই একটা রেডি ওয়েবসাইট কিনে নিবেন। কারন কোডিং করে একটা ওয়েবসাইট শুরু থেকে তৈরি করতে অনেক সময় লেগে যায়। সেইসাথে সাইট এর কন্টেন্ট এর কাজেও কিন্তু অনেক সময় ব্যয় হয়।

কাষ্টমাইজ করার ঝামেলা নেইঃ

রেডি ওয়েবসাইট এর সব পেইজ এর লে-আউট দেখে যাছাই বাছাই করার পর আপনি কিনবেন। যদি সাইট এর ডিজাইন পছন্দ না হয় তাহলে নিশ্চয় সেই সাইট টি ক্রয় করবেন না। একটা কাস্টম সাইট বানাতে হলে আপনার ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর উপর ব্যাসিক আইডিয়া থাকা দরকার। কিন্তু রেডিমেড সাইট কিনতে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর জ্ঞান না থাকলেও হবে আর সাইট টি কাস্টমাইজ করার ঝামেলা নেই। আপনি যদি একজন বিগেনার লেভেল এর লোক হয়ে থাকেন অর্থাৎ ওয়েব সাইটের বিভিন্ন টেকনিক্যাল বিষয় নিয়ে আপনার ধারণা একদমই শূন্য থাকে তবে রেডি ওয়েবসাইট হবে আপনার জন্য বেস্ট চয়েজ।

রেডি ওয়েবসাইট কেনায় খরচ কম লাগেঃ

আপনি দুইভাবেই আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে পারেন। প্রথমত কোন মার্কেটপ্লেস থেকে ভালো ফ্রিল্যান্সার হায়ার করে তাদের মাধ্যমে ওয়েবসাইট তৈরী করে নিতে পারেন অথবা বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠিত কোন কোম্পানি এবং এক্সপার্ট ডেভেলপার এর কাছ থেকে আপনি ওয়েবসাইট মেকিং সার্ভিস গ্রহণ করতে পারেন। আবার বাইরের দেশ থেকে ডোমেইন, হোস্টিং না কিনে দেশীয় প্রতিষ্ঠান থেকেও কিন্তু খুব সহজে কিনতে পারবেন। সেইসাথে একটা ওয়েবসাইট এর সম্পুর্ন কাজ করতে আপনার দরকার হবে একজন গ্রাফিক ডিজাইনার,কন্টেন্ট রাইটার। সাইট গুগোল ইন্ডেক্সিং করতে দরকার হতে পারে এসইও এক্সপার্ট। এসব কাজ আলাদা আলাদা করা যেমন ঝামেলাপুর্ন তেমন ব্যয়বহুল। রেডি ওয়েবসাইটে এই সবকিছু একসাথে পাবেন। তাই রেডি ওয়েবসাইট কেনার খরচ কম। 

পরিশেষে

ইন্ডাষ্ট্রি বা নিশ সম্পর্কে সঠিক ধারনা না থাকলে একটা ওয়েব সাইট কেনাটা আপনার জন্য ভুল সিদ্ধান্ত হতে পারে। তাই আগে আপনার লক্ষ্য ঠিক করুন তারপর একটা ওয়েবসাইট কিনুন। রেডি ওয়েবসাইট কেনার আগে যেসব বিষয় খেয়াল রাখতে হবে তা নিয়ে আমাদের Yappobd এর ব্লগ সেকশনে একটি আর্টিকেল আছে। সেটি পড়ে নিতে পারেন।

সবশেষে যদি কম খরচে একটা রেডি ওয়েবসাইট কেনার কথা ভাবেন তাহলে আজই যোগাযোগ করুন Yappobd এর সাথে। আপনার পছন্দ অপছন্দ কে আমরা সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে বাজেটের মধ্যে রেডি ওয়েবসাইট বিক্রি করে থাকি।

Facebook Comment